সোমবার ১৮ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২রা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম >>

আখাউড়ায় যাত্রীসেবায় সূর্য সৈনিক রেলওয়ে মুক্ত স্কাউট গ্রুপের রোভার স্কাউট।

  |   রবিবার, ১১ আগস্ট ২০১৯ | 548 বার পঠিত | প্রিন্ট

আখাউড়ায় যাত্রীসেবায় সূর্য সৈনিক রেলওয়ে মুক্ত স্কাউট গ্রুপের রোভার স্কাউট।

অমিত হাসান অপু

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায়
ঈদ উপলক্ষে গতকাল ১০ আগস্ট শনিবার সকালে রেলওয়ে জংশন স্টেশনে যাত্রীসেবায় নিয়োজিত রয়েছে সূর্য সৈনিক রেলওয়ে মুক্ত স্কাউট গ্রুপ। গ্রুপের সদস্যরা ঈদে ঘরমুখো যাত্রীদের বিভিন্ন সেবা দিয়ে সহায়তা করছেন।


আখাউড়া রেলওয়ে জংশন স্টেশনে ঘুরে ও স্কাউট গ্রুপের সদস্যদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, একটি গ্রুপের ২৫ জন রোভার স্কাউট সদস্য প্রতি বছরের মতো এবারও ঈদে ঘরে ফেরা যাত্রীদের সেবা দিচ্ছেন। আখাউড়া রেলওয়ের সঙ্গে অন্তর্ভূক্ত এই গ্রুপ এক টি হলো সূর্য সৈনিক রেলওয়ে মুক্ত স্কাউট গুপ ।।

একটি গ্রুপে ২৫ জন রোভার স্কাউট সদস্য রয়েছেন। তারা সবাই বিভিন্ন
স্কুল ও কলেজ এর শিক্ষার্থী। আজ দিনব্যাপী এই স্কাউট গ্রুপ সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৪:৩০ পর্যন্ত যাত্রীদের সেবা দেন।


এই সময় উপস্থিত ছিলেন আখাউড়া রেলওয়ে জেলা স্কাউটস এর সহকারী কমিশনার জনাব আব্দুল মমিন বাবুল, জেলা সম্পাদক আহসান কবির লিটন, স্টেশন সুপারিনটেনডেন্ট খলিলুর রহমান, গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা নাজমুল হাসান ভূইয়া গ্রুপ সহসভাপতি সমীর চক্রবর্তী, সম্রাট খাদেম এবং সূর্য সৈনিক গ্রুপের সম্পাদক মোঃ রাকিব হাসান সহ আখাউড়া রেলওয়ে জিআরপি থানার পুলিশ সদস্যরা।

স্কাউট গ্রুপের কয়েকজন সদস্য আখাউড়া রেলওয়ে জংশন স্টেশনের মূল গেটে পুলিশ সদস্যদের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করছেন। তারা বহিরাগতদের ভেতরে প্রবেশ করতে দিচ্ছেন না। টিকিট ছাড়া প্লাটফর্মে প্রবেশ নিষিদ্ধ থাকলেও বহিরাগতরা সবসময়ই প্লাটফর্মে ঘোরাফেরা করে থাকেন। এবার বিষয়টি বেশ গুরুত্বের সঙ্গে দেখছে কর্তৃপক্ষ। বহিরাগতদের কাউকে ভেতরে যেতে দেওয়া হচ্ছে না। এ কাজে আনসারদের চেয়ে স্কাউট গ্রুপের সদস্যদের বেশি তৎপরতা দেখা গেলো।


এছাড়া গ্রুপের ৫ জন সদস্য প্লাটফর্মের মূলগেটের ভেতরে টেবিল নিয়ে বসে আছেন। তারা বিভিন্ন ট্রেনের সময়সূচি যাত্রীদের জানিয়ে দিচ্ছেন। কেউ যাত্রীদের ট্রেনে উঠতেও সহায়তা করছেন।

সূর্য সৈনিক রেলওয়ে মুক্ত স্কাউট গ্রুপের সম্পাদক মোঃ রাকিব হাসান আখাউড়া আলো২৪.কমকে বলেন, বহু বছর ধরে দুই ঈদ এর সময় রোভার স্কাউট গ্রুপের সদস্যরা আখাউড়া রেলওয়ে জংশন স্টেশনে যাত্রীদের বিভিন্ন রকমের সেবা দিয়ে থাকেন।

কি ধরনের সেবা দেন জানতে চাইলে রাকিব হাসান বলেন, আমরা কয়েকটি গ্রুপে ভাগ হয়ে স্টেশনের বিভিন্ন পয়েন্টে দায়িত্ব পালন করি। এর মধ্যে যাত্রীদের ট্রেনের সময়সূচি জানিয়ে দেওয়া, বিনা টিকিটে প্লাটফর্মে প্রবেশকারীদের ধরে টিসি’র (টিকিট চেকার) কাছে হস্তান্তর, কখনও বহিরাগতরা বের হতে না চাইলে বা খারাপ আচরণ করলে রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর কাছেও সোপর্দ করি।

এছাড়া বৃদ্ধ, শারীরিক প্রতিবন্ধী যাত্রীদের মালামাল এগিয়ে দেওয়া ও তাদের ট্রেনে উঠতে সহায়তা করে থাকি। ট্রেন থেকে নামার পর তাদেরকে গাড়িতে ওঠার জন্যও সহায়তা করা হয়।

তিনি আরো যাত্রীদের উদ্দেশে বলেন, সবাই যেন টিকিট কেটে রেল ভ্রমণ করেন। তাদের সবার ঈদযাত্রা শুভ ও নিরাপদ হোক এটাই প্রত্যাশা করি।

Facebook Comments Box

Posted ৬:০৯ পূর্বাহ্ণ | রবিবার, ১১ আগস্ট ২০১৯

Akhaurar Alo 24 |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০৩১  
মোঃ সাইফুল ইসলাম সম্পাদক
বার্তা ও সম্পাদকীয় কার্যালয়

আখাউড়া, ব্রাহ্মণবাড়িয়া

E-mail: info@akhauraralo24.com